Wednesday, April 17, 2024

অনলাইনে আয়ের সবচেয়ে সহজ উপায়- ২০২২

অনলাইন ইনকাম ২০২২ (Online Income): আপনি যদি একজন ছাত্র বা চাকরিজীবী হয়ে থাকেন তাহলে এই পোষ্টটি আপনার জন্যই। পড়াশোনা বা চাকরির পাশাপাশি আপনি চাইলে  অনলাইন থেকে বাড়তি ইনকাম করতে পারবেন খুব সহজেই। বর্তমানে অনলাইন থেকে  আয় করে সাবলম্বী হচ্ছে হাজারও বেকার ছেলে মেয়েরা।

অনলাইনে আয় করার জন্য বর্তমানে বিভিন্ন ধরনের  প্ল্যাটফর্ম রয়েছে। যেমন, ইউটিউব থেকেই প্রতি মাসে লাখ টাকা আয়Seo করে খুব সহজেই অনলাইন থেকে টাকা ইনকাম করতে পারবেন। এছাড়াও ঘরে বসে গুগল অ্যাডসেন্স থেকেও ইনকাম করতে পারবেন খুব সহজেই। আপনি ইচ্ছা করলে যে কোন একটি প্লাটফর্ম কে কাজে লাগাতে পারবেন। আজ আমি যে বিষয় নিয়ে আলোচনা করব সেটি হচ্ছে ব্লগিং। ব্লগিং অনলাইন থেকে টাকা ইনকাম করার সবচেয়ে সহজ উপায়। ব্লগিং করে কিভাবে অনলাইন থেকে আয় করা যায় সে ব্যাপারে আমার আজকের এই আর্টিকেলটি। 

অনলাইনে আয় করার সহজ উপায় কি?

বর্তমানে অনলাইনে আয় করার সবচেয়ে সহজ উপায় হল লেখালেখি করে আয় করা। আপনার যদি লেখার অভ্যাস থাকে বা আপনি যদি ভাল লিখতে পারেন তাহলে লেখালেখি করেই সহজে অনলাইন থেকে টাকা আয় করতে পারবেন। আপনার কোন না কোন বিষয়ে পরিপূর্ন জ্ঞান অবশ্যই আছে সেটি আপনাকে খুজে বের করতে হবে। এবং সেই বিষয়ের উপর লেখালেখি করতে হবে। আপনার লেখাটি পড়লে অনেকের উপকার হবে এবং কিছু জানতে ও শিখতে পারবে। আর তাই আপনার লেখাটি হতে হবে রুচিশীল ও মানসম্মত। তবে যেকোন বিষয় জানার জন্য প্রথমেই আমরা ইন্টারনেটে খুজি, কারন ইন্টারনেট থেকেই আমরা সবকিছুই পেয়ে যাই।

তাই যে বিষয়ে আপনার পরিপূর্ন ধারণা আছে আপনি ওই বিষয়ে ইন্টারনেট থেকে আরও বেশি ধারনা নিতে থাকুন। পাশাপাশি যারা এই বিষয়টি নিয়ে লেখালেখি করছে তাদের লেখাগুলো নিয়মিত পড়ুন। তারপর নিজেকে যাচাই করুন। যদি তাদের থেকে আপনার ভাল লেখার দক্ষতা থাকে তাহলে আপনি অনলাইন থেকে খুব সহজে টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

আপনার অনলাইন থেকে লেখালেখি করে আয় করার খুবই আগ্রহ কিন্তু বুঝতে পারছেন না কি বিষয়ে লিখবেনঃ

জানতে হলে আর্টিকেলটি শেষ পর্যন্ত পড়ুন। আপনি ভ্রমন করতে পছন্দ করেন তাহলে ভ্রমন নিয়ে লেখালেখি শুরু করুন। যেহেতু আপনি অনেক জায়গা ঘুরে এসেছেন এবং সেই সব জায়গা সম্পর্কে আপনার ধারনা রয়েছে। যদি যথেষ্ট ধারনা না থাকে তাহলে ঘুরে আসা কোন একটা জায়গার ভ্রমন সম্পর্কে ইন্টারনেটে খুজুন। আপনার যদি মনে হয় এই সম্পর্কে আগে যারা লিখে রেখেছে তাদের থেকে আপনি ভাল লিখতে পারবেন তাহলে আপনি ভ্রমন নিয়ে লিখতে পারেন। আমরা ইন্টারনেটে খুজি কোন জায়গাটা ভ্রমনের জন্য ভাল হবে? কি পরিমাণ খরচ হতে পারে ? কতদিন সময় লাগতে পারে? যোগাযোগ ব্যাবস্থা কেমন? কতটুকু নিরাপত্তা আছে সেখানে? কিভাবে যেতে হবে? কোথায় থাকতে হবে? ভাল খাবার কোথায় পাওয়া যাবে ? এরকম আরো অনেক তথ্য জানতে হবে।

আপনি যদি সব ইনফরমেশন সহ একটি পরিপূর্ন লেখা দিতে পারেন তাহলে আপনার লেখাটি মানসম্মত হবে। যে পড়বে তার অনেক উপকার হবে এবং

আপনার উপর অনেক খুশি হবে। একটা উদাহরন দিলাম এরকম আরো অনেক বিষয় আছে যা নিয়ে আপনি লিখতে পারবেন। সময় নিয়ে ভাবুন নিজেকে যাচাই করুন তাহলে বুঝতে পারবেন আপনি কি অনলাইন থেকে লেখালেখি করে আয় করতে পারবেন কি না।

ব্লগার থেকে কিভাবে টাকা আয় করা যায়?

অনলাইনে-আয়ের-সবচেয়ে-সহজ-উপায়-২০২২
অনলাইন ইনকাম ২০২২ (Online Income): আপনি যদি একজন ছাত্র বা চাকরিজীবী হয়ে থাকেন তাহলে এই পোষ্টটি আপনার জন্যই। পড়াশোনা বা চাকরির পাশাপাশি আপনি চাইলে অনলাইন থেকে বাড়তি ইনকাম করতে পারবেন খুব সহজেই। বর্তমানে অনলাইন থেকে আয় করে সাবলম্বী হচ্ছেন হাজারও বেকার ছেলে মেয়েরা।

অনলাইনে লেখালেখি করে টাকা ইনকাম করতে হলে আপনার প্রথমে একটি ওয়েবসাইট লাগবে। তবে এর জন্য ব্লগের ফ্রী ওয়েবসাইট খুলে নিতে পারেন। ব্লগার থেকে টাকা আয় করার উপায় হল আপনার ওয়েবসাইটে গুগল এডসেন্স ব্যবহার করা। ব্লগারের ওয়েবসাইট গুলো ঘুরে দেখলে বিভিন্ন রকম এড দেখতে পারবেন।

আপনার লেখাগুলো পড়তে আপনার ওয়েবসাইটএ যখন ভিজিটর আসবে, আপনার লেখা গুলো অনেক মানুষ পড়বে, তখন আপনার সাইটে এড দিতে পারবেন। তাছাড়া অন্যের ওয়েবসাইটে আপনি লেখালেখি করেও ইনকাম করতে পারেন। এজন্য আপনাকে ওয়েবসাইটটি যার, তার সাথে আলোচনা করতে হবে।

তবে প্রথমে আপনি আপনার ব্লগারে যাবেন। তারপর আপনার জিমেইল আইডি দিয়ে একটি একাউন্ট তৈরি করবেন। এবং আপনার সাইটের একটি নাম দিবেন আর সাইট খোলা হয়ে যাবে। আপনার সাইটটি এমন হবে আপনার (সাইটের নাম).blogspot.com যদি আপনি এই ব্লগস্পট লেখাটি রাখতে না চান তাহলে আপনাকে একটি ডোমেইন কিনে নিতে হবে। আপনি ৫০০ থেকে ৭০০ টাকায় ডোমেইন কিনে নিতে পারবেন।

এরপর আপনার সাইটের ডিজাইন করতে হবে। এটি তেমন কঠিন কিছু না। কোন রকম কোডিং নলেজ ছাড়াই আপনি সাইটটি ডিজাইন করে নিতে পারবেন খুব সহজেই। এজন্য সব থেকে ভাল হয় আপনি ইউটিউব থেকে ভিডিও টিউটোরিয়াল দেখে নিতে পারেন।

আরো পড়ুন..

সাইটের ডিজাইন করা হয়ে গেলে আপনাকে নিয়মিত আর্টিকেল লিখতে হবে এবং সাথে সাথে নিয়মিত ভাবে পোস্টও করতে হবে। ১০-১৫টা পোষ্ট লেখা হয়ে গেলে তারপর আপনি গুগল এডসেন্স এর জন্য এপ্লাই করতে পারবেন। ১৪-২১দিনের মধ্যে আপনার সাইটি এড সো করানোর জন্য এপ্রুভ হয়ে যাবে। এজন্য আপনার সাইটটি সুন্দর করে সাজাতে হবে। সুন্দর বলতে এমন না যে আপনাকে টাকা দিয়ে প্রিমিয়াম থিম কিনে নিতে হবে। আপনার সাইটের লেখা গুলো, হেডার, কন্টেন্ট বডি, সাইডবার, ফুটার এইগুলো সুন্দর করে সাজান যেন ইউজারদের কাছে আপনার সাইট সম্পর্কে আইডিয়া পেতে সুবিধা হয়। আর আপনার সাইটে এবাউট এবং টার্মস এন্ড কন্ডিশন্স এই দুইটা পেইজ সুন্দর করে ডিটেইলস লিখে তারপরে এডসেন্সের জন্য এপ্লাই করুন। তাহলে খুব সহজেই ১৪-২১দিনের মধ্যে এডসেন্স এপ্রুভাল পেয়ে যাবেন।

বড় সুবিধা হলো আপনি এডসেন্স থেকে নিয়মিত ইনকামের পাশাপাশি আরো অনেক উপায়ে ব্লগার থেকে টাকা ইনকাম করতে পারবেন। যেমন ধরুন আপনি এমন কোন কাজ পারেন, যা আপনার অডিয়েন্সদের অনলাইনে সার্ভিস দিতে পারবেন। তাহলে আপনি আপনার কন্টেন্টের মাধ্যমে অথবা নিজেই এড তৈরি করে কাস্টমার পেতে পারেন। আবার ধরুন আপনি কোন প্রোডাক্ট অনলাইনে সেল করতে চান তাও আপনি বিক্রি করতে পারবেন।

কিভাবে ব্লগে ভিজিটর আনবেন?

মনে করুন আপনি একটি ওয়েবসাইট তৈরি করে ফেলেছেন এখন আপনার ওয়েবসাইটের জন্যে প্রয়োজন হবে ভিজিটরের। শুধুমাত্র আপনার একটি ওয়েবসাইট থাকলেই সেখান থেকে ইনকাম করা সম্ভব নয় যদি সে ওয়েবসাইটে ভিজিটর না থাকে। ওয়েবসাইট থেকে ইনকাম করার সবচেয়ে Important বিষয় হচ্ছে ভিজিটর। আপনার ওয়েবসাইটে যতবেশি ভিজিটর থাকবে আপনি তত বেশি ইনকাম করতে পারবেন।

ওয়েবসাইটে ভিজিটর আনার জন্য আপনাকে কিছু কিছু এসইও ট্রিক্স শিখতে হবে। আপনি যখন আপনার ওয়েবসাইটের এসইও করবেন তখন আপনার ওয়েবসাইটে আস্তে আস্তে ভিজিটর আসা শুরু করবে। এবং আপনার কাজের সাথে সাথে ভিজিটরের পরিমাণ বাড়তে থাকবে এবং আপনার ইনকাম এর পরিমাণ বাড়তে থাকবে।

এগুলো অবশ্যই পড়বেন—

গুগল এডসেন্স থেকে কি পরিমাণ আয় করা সম্ভব?

আমরা সবাই জানি,ওয়েবসাইটে লেখালেখি করাকে ব্লগ বলে। যে ওয়েবসাইটে শুধু ব্লগ লিখা হয় তাকে ব্লগ ওয়েবসাইট বলে। ব্লগ ওয়েবসাইটে লেখালেখি করাকে ব্লগিং বলে। আর যারা ব্লগিং করে তাদের বলে ব্লগার। ব্লগিং করে আপনি প্রতিমাসে কমপক্ষে ১০০-১০০০ ডলার ইনকাম করতে পারবেন খুব সহজেই। তাছাড়া আপনি ব্লগিং করে সর্বোচ্চ কত টাকা ইনকাম করতে পারবেন তার কোন সীমারেখা নেই। আপনি কি পরিমাণ ইনকাম করতে পারবেন তা নির্ভর করছে আপনার লেখার দক্ষতার উপর। আপনি যত বেশি হাই কোয়ালিটি আর্টিকেল লিখবেন তত ভাল ইনকাম করতে পারবেন। যত বেশি মানুষ আপনার লেখা পড়বে আপনার ওয়েবসাইটে আসবে আপনার ইনকাম ও তত বেশি হবে। ব্লগিং করে ইনকাম করার জন্য সবচেয়ে ভাল উপায় হল আপনার সাইটে গুগল এডসেন্স ব্যবহার করা। গুগল অ্যাডসেন্স সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে পরুনগুগল অ্যাডসেন্স কি? গুগল অ্যাডসেন্স থেকে কিভাবে আয় করবেন?

যদি আপনি একজন প্রফেশনাল ব্লগার হতে চান তাহলে-

  • ভালভাবে ওয়ার্ডপ্রেস শিখতে হবে।
  • ডোমেইন হোস্টিং সম্পর্কে ধারণা থাকতে হবে।
  • অবশ্যই হাই কোয়ালিটি আর্টিকেল লিখা শিখতে হ…
  • এসইও শিখতে হবে (অন পেইজ এবং অফ পেইজ এসইও)।
  • যদি ইংলিশ লিখতে চান তাহলে আপনাকে ইংলিশে খুবই দক্ষ হতে হবে।

উপরে উল্লিখিত সবগুলো বিষয় যদি শিখে ফেলেন তাহলে ব্লগিং এর পাশাপাশি আপনি ফ্রিলান্সিং ও করতে পারবেন। তাই ব্লগিং শিখলে আপনাকে কখনোই বেকার বসে থাকতে হবে নাঘরে বসেই অনলাইনে ভালমানের টাকা ইনকাম করতে পারবেন। এই কাজগুলো শিখার জন্য আপনি ভুল করেও টাকা খরচ করে কোন কোর্স করতে যাবেন না। ইন্টারনেটে খুজলে সবকিছু পাবেন আর অনেক ভালভাবে শিখতে পারবেন। তাছাড়া আমাদের ওয়েবসাইটে ব্লগিং শুরু করা থেকে ইনকাম করা পর্যন্ত যা কিছু প্রয়োজন সব পাবেন। ডোমেইন হোস্টিং নিয়ে প্রথমেই প্রফেশনালভাবে ব্লগিং শুরু করতে আপনার কিছু টাকা খরচ করতে হবে। প্রায় ২হাজার টাকা খরচ হবে ডোমেইন হোস্টিং কিনার জন্য। 

আপনি যদি সিদ্ধান্ত নিয়ে থাকেন লেখালেখি করে অনলাইন থেকে টাকা আয় করবেন। তাহলে ব্লগারে একটি ফ্রি সাইট খুলে কাজ শুরু করতে পারেন। অনলাইনে ক্যারিয়ার গড়তে চাইলে এটাই হবে আপনার সবচেয়ে ভাল সিদ্ধান্ত। যখন আপনার ইনকাম হওয়া শুরু হবে তখন আরো বেশি ইনকাম করার জন্য বাকি কাজগুলো সহজেই শিখে যাবেন।

তাহলে আপনি অনলাইনে আয় করার সহজ উপায় সম্পর্কে বিস্তারিত জানলেন। অনলাইনে ইনকাম 2022: কমপ্লিট গাইডলাইন এই পোস্টে বিস্তারিত আরো অনেক ইনফরমেশন পাবেন। ইউটিউব থেকে কিভাবে টাকা আয় করবেন তাও আমাদের ওয়েবসাইটে আছে দেখে নিন। তাছাড়া জেনে নিতে পারেন ফেসবুক থেকে কিভাবে আয় করবেন তার বিস্তারিত গাইডলাইন।

আমার শেষ কথাঃ

এই ছিল আজকে অনলাইনে আয়ের সবচেয়ে সহজ উপায়- ২০২২ নিয়ে লেখা। আশা করি আপনাদের ভাল লেগেছে। আপনাদের যদি কোন রকম প্রশ্ন থাকে তাহলে কমেন্ট করে অবশ্যই জানাবেন।

Businesses BDhttps://www.businesslinear.com/
Lorem ipsum is a placeholder text commonly used to demonstrate the visual form of a document or a typeface without relying on meaningful content

Related Articles

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Latest Articles